মঙ্গলবার ২৭ অক্টোবর ২০২০, ১১ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
◈ শিক্ষার প্রসার ঘটাতে শিগগিরই নওগায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন করা হবে- খাদ্যমন্ত্রী ◈ নোয়াখালী সুবর্ণচরে মন্দিরে মন্দিরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দুর্গোৎসব ◈ কুড়িগ্রামে জেলা পর্যায়ে গোদরোগ নির্মূলে সামাজিক উদ্বুদ্ধকরণসভা অনুষ্ঠিত ◈ বাগমারায় পূজা মন্দিরের নিরাপত্তায় সশস্ত্র আনসার ◈ সাইনোসাইটিস রোগ প্রতিরোধ ও প্রতিকার সম্পর্কে বললেন, ডা. সাইফুল আলম ◈ স্বাস্থ্য বিধি মেনে কুড়িগ্রামে উৎসব-আনন্দে চলছে ৪৯৭টি মন্ডপে দূর্গাপূজা ◈ শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে রাজশাহী পুলিশ সুপারের শুভেচ্ছা উপহার প্রদান ◈ মহাদেবপুরে সড়ক গুলোতে বেপরোয়াভাবে চলছে চার্জার চালিত রিক্সা-ভ্যান, বাড়ছে দূরঘর্টনা! ◈ কুড়িগ্রামে পুঁজায় শতাধিক হরিজন শিশু নতুন পোষাক পেল ◈ সাংবাদিকের পিতৃবিয়োগ, মনীন্দ্র চন্দ্র দত্ত ভৌমিক আর নেই

সত্যিই কি, বারবার ন্যাড়া করলে পাতলা চুল ঘন হয়!

প্রকাশিত : ০৬:২৮ পূর্বাহ্ণ, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ রবিবার ৩৬৯ বার পঠিত

দৈনিক সত্যের সন্ধান নিউজ ডেক্স, :

 

ন্যাড়া করে দিলেই চুল ঘন হবে- এই বিশ্বাস প্রায় সবার মনেই! শিশুদের পাতলা চুল ঘন হবে বলে বাবা-মায়েরা কিছু দিন পরপরই তাদের মাথার চুল ফেলে দেন। এটা বেশ বড় বয়স পর্যন্ত চলে কারো কারো ক্ষেত্রে। বারবার ন্যাড়া করলেই যে ভালো চুল গজাবে, এ কথাটার কিন্তু কোনো বৈজ্ঞানিক ভিত্তি নেই।

কারণ বিশেষজ্ঞরা বলেন, চুল ন্যাড়া করার অর্থ হচ্ছে মাথার ওপরে চুলের যতটুকু অংশ আছে, কেবল সেটুকুই ফেলে দিচ্ছেন। এর ফলে আপনার হেয়ার ফলিকলের স্বাস্থ্যোন্নতি হওয়া সম্ভব নয়। চুলের স্বাস্থ্যে জিন বা বংশগতির ধারার ভূমিকা সবচেয়ে বেশি- তাই বাচ্চাকে যত বারই ন্যাড়া করুন না কেন, সে পরিবারের অন্য সবার মতোই চুলের ধারা পাবে।

একটু লক্ষ্য করলেই দেখা যাবে চুল যেমন ছিল, টাক করে দেয়ার পরে নতুন চুল যখন গজালো সেই একই ধরনের চুল হলো। এজন্য চুলের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে ছোট বড় সবারই ন্যাড়া হওয়ার তেমন প্রয়োজন নেই। তবে তিন-চার মাস পরপর চুলের আগা কেটে ট্রিম করিয়ে নিলে চুল সুন্দর থাকে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক সত্যের সন্ধান'কে জানাতে ই-মেইল করুন- sattersandhan24@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক সত্যের সন্ধান'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক সত্যের সন্ধান | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT